বগুড়া ০১:৩২ অপরাহ্ন, বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ৯ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম ::
Logo কাহালুর বীরকেদার ইউনিয়নে বিএনপির গণ-সংযোগ ও লিফলেট বিতরণ অনুষ্ঠিত Logo কাহালুর শেখাহার দ্বি-মূখী উচ্চ বিদ্যালয়ের বার্ষিক ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ Logo আদমদিঘীতে সড়ক দুর্ঘটনায় এক শিশু নিহত Logo বগুড়ায় মাসিক কল্যাণ সভায় শ্রেষ্ঠ নির্বাচিত শেরপুর থানা Logo র‍্যাবের যৌথ অভিযানে আটক ৬ Logo বগুড়ায় ছুরিকাঘাতে এক যুবক নিহত Logo কাহালু প্রেসক্লাবের নতুন কমিটি গঠন সম্পর্কে সিনিয়র সহ আট সাংবাদিকের বিবৃতি প্রদান Logo কাহালুতে বিএনপির গণ-সংযোগ ও লিফলেট বিতরণ Logo যুবলীগের সাধারণ সম্পাদকের পদ চান বিএনপি জামায়াতের নাশকতা মামলার আসামী Logo সান্তাহারে ট্রেনের টিকিট কালোবাজারি চক্রের সদস্য গ্রেফতার
নোটিশ ::
"বগুড়া বুলেটিন ডটকম" এ আপনাকে স্বাগতম। বগুড়ার প্রত্যেক উপজেলায় ১জন করে প্রতিনিধি নিয়োগ দেওয়া হবে। ফাঁকা উপজেলাসমূহ- সদর, শাজাহানপুর, ধনুট, শেরপুর, নন্দীগ্রাম

রাস্তার বেহাল দশা, ভোগান্তি চরমে, প্রশাসনের টনক কবে নড়বে

আরিফুর রহমান, গাবতলী (বগুড়া) প্রতিনিধি
  • আপডেট সময় : ০৭:১৯:০৫ অপরাহ্ন, সোমবার, ২২ মে ২০২৩
  • / 127
আজকের জার্নাল অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

দীর্ঘদিন ধরে সংস্কার না হওয়ায় বগুড়ার গাবতলী উপজেলার নাড়ুয়ামালা আমতলা ও  সুখানপুকুর বাজারের ওপরে এলজিইডি রাস্তার বেহাল অবস্থা। এতে চলাচলে চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন প্রতিদিন হাজার হাজার মানুষ। সরেজমিন গিয়ে দেখা গেছে,  রাস্তায়  ছোট-বড় খানাখন্দে পরিণত হয়েছে। ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা, ভ্যানগাড়ি ও মোটরসাইকেল আরোহীদের দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। সামান্য বৃষ্টিতেই  ডুবে কাঁদা সৃষ্টি হয়।

স্থানীয়রা জানান, গাবতলী টু সোনাতলা একমাত্র রাস্তার বেহাল অবস্থা। সামান্য বৃষ্টিতেই নাড়ুয়ামাল আমতলা ও সুখানপুকুর বাজার ২স্থানে জলাবদ্ধতা দেখা দেয়।নাড়ুয়ামালা আমতলায় ২২মে সোমবার সকাল ৯টা থেকে রাস্তার মাঝখানে একটি ট্র্যাক গর্তে পড়ে আছে, কোনভাবেই উঠতে পারছে না ।প্রতিনিয়তই এই সড়কে ঘটছে ছোট-বড় দুর্ঘটনা। যানবাহন গেলে পথচারীদের গায়ে কাঁদাপানি ছিটে একাকার হয়ে যায়।শত শত ভারী ও হালকা যানবাহন এই সড়ক দিয়ে চলাচল করে। মানুষ ঝুঁকি নিয়ে চলাচল করছে এ পথে। রাস্তার কর্তপক্ষ ও জনপ্রতিনিধি কেউ ব্যবস্থা নেয়নি।ক্ষোভ জানিয়েছেন সাধারন মানুষ।

হায়দার আলী বলেন, ৬মাসের বেশি হবে, রাস্তার এই অবস্থা কেউ তো ঠিক করেনা। সামান্য বৃষ্টি হলেই পানি আটকে যায়।

লেচু বলেন, একটু বৃষ্টি আসলে সব ডুবে যায়। মানুষ শান্তি মতো চলাচল তো দূরের কথা, বাজারঘাটও ঠিকভাবে করতে পারে না।’

খোকন বলেন, রাস্তার যে অবস্থা হয়েছে। কোনদিন মনে হয় গাড়ী দোকানের ওপর উঠে যাবি। অতি দ্রুত সংস্কার হওয়া দরকার। উর্ধতন কর্মকর্তার নজর দরকার।

ইমারুল ইসলাম বলেন, সুখানপুকুর বাজারের এই এলজিইডি রাস্তার চলাচলের জন্য অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। অতি তারাতারি সংস্কার না করলে দুর্ভোগ চরমে উঠবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

রাস্তার বেহাল দশা, ভোগান্তি চরমে, প্রশাসনের টনক কবে নড়বে

আপডেট সময় : ০৭:১৯:০৫ অপরাহ্ন, সোমবার, ২২ মে ২০২৩

দীর্ঘদিন ধরে সংস্কার না হওয়ায় বগুড়ার গাবতলী উপজেলার নাড়ুয়ামালা আমতলা ও  সুখানপুকুর বাজারের ওপরে এলজিইডি রাস্তার বেহাল অবস্থা। এতে চলাচলে চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন প্রতিদিন হাজার হাজার মানুষ। সরেজমিন গিয়ে দেখা গেছে,  রাস্তায়  ছোট-বড় খানাখন্দে পরিণত হয়েছে। ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা, ভ্যানগাড়ি ও মোটরসাইকেল আরোহীদের দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। সামান্য বৃষ্টিতেই  ডুবে কাঁদা সৃষ্টি হয়।

স্থানীয়রা জানান, গাবতলী টু সোনাতলা একমাত্র রাস্তার বেহাল অবস্থা। সামান্য বৃষ্টিতেই নাড়ুয়ামাল আমতলা ও সুখানপুকুর বাজার ২স্থানে জলাবদ্ধতা দেখা দেয়।নাড়ুয়ামালা আমতলায় ২২মে সোমবার সকাল ৯টা থেকে রাস্তার মাঝখানে একটি ট্র্যাক গর্তে পড়ে আছে, কোনভাবেই উঠতে পারছে না ।প্রতিনিয়তই এই সড়কে ঘটছে ছোট-বড় দুর্ঘটনা। যানবাহন গেলে পথচারীদের গায়ে কাঁদাপানি ছিটে একাকার হয়ে যায়।শত শত ভারী ও হালকা যানবাহন এই সড়ক দিয়ে চলাচল করে। মানুষ ঝুঁকি নিয়ে চলাচল করছে এ পথে। রাস্তার কর্তপক্ষ ও জনপ্রতিনিধি কেউ ব্যবস্থা নেয়নি।ক্ষোভ জানিয়েছেন সাধারন মানুষ।

হায়দার আলী বলেন, ৬মাসের বেশি হবে, রাস্তার এই অবস্থা কেউ তো ঠিক করেনা। সামান্য বৃষ্টি হলেই পানি আটকে যায়।

লেচু বলেন, একটু বৃষ্টি আসলে সব ডুবে যায়। মানুষ শান্তি মতো চলাচল তো দূরের কথা, বাজারঘাটও ঠিকভাবে করতে পারে না।’

খোকন বলেন, রাস্তার যে অবস্থা হয়েছে। কোনদিন মনে হয় গাড়ী দোকানের ওপর উঠে যাবি। অতি দ্রুত সংস্কার হওয়া দরকার। উর্ধতন কর্মকর্তার নজর দরকার।

ইমারুল ইসলাম বলেন, সুখানপুকুর বাজারের এই এলজিইডি রাস্তার চলাচলের জন্য অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। অতি তারাতারি সংস্কার না করলে দুর্ভোগ চরমে উঠবে।