বগুড়া ০৩:৩০ অপরাহ্ন, বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ৯ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম ::
Logo বগুড়ার সদরের নুনগোলা উচ্চ বিদ্যালয়ে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উদযাপন Logo কাহালুর বীরকেদার ইউনিয়নে বিএনপির গণ-সংযোগ ও লিফলেট বিতরণ অনুষ্ঠিত Logo কাহালুর শেখাহার দ্বি-মূখী উচ্চ বিদ্যালয়ের বার্ষিক ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ Logo আদমদিঘীতে সড়ক দুর্ঘটনায় এক শিশু নিহত Logo বগুড়ায় মাসিক কল্যাণ সভায় শ্রেষ্ঠ নির্বাচিত শেরপুর থানা Logo র‍্যাবের যৌথ অভিযানে আটক ৬ Logo বগুড়ায় ছুরিকাঘাতে এক যুবক নিহত Logo কাহালু প্রেসক্লাবের নতুন কমিটি গঠন সম্পর্কে সিনিয়র সহ আট সাংবাদিকের বিবৃতি প্রদান Logo কাহালুতে বিএনপির গণ-সংযোগ ও লিফলেট বিতরণ Logo যুবলীগের সাধারণ সম্পাদকের পদ চান বিএনপি জামায়াতের নাশকতা মামলার আসামী
নোটিশ ::
"বগুড়া বুলেটিন ডটকম" এ আপনাকে স্বাগতম। বগুড়ার প্রত্যেক উপজেলায় ১জন করে প্রতিনিধি নিয়োগ দেওয়া হবে। ফাঁকা উপজেলাসমূহ- সদর, শাজাহানপুর, ধনুট, শেরপুর, নন্দীগ্রাম

ভারতের সবচেয়ে গরিব মুখ্যমন্ত্রী মমতা

বগুড়া বুলেটিন ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ০৫:৩৯:০৪ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৩ এপ্রিল ২০২৩
  • / 142
আজকের জার্নাল অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

ভারতের ২৮টি রাজ্য ও ২টি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের মুখ্যমন্ত্রীদের মধ্যে সবচেয়ে গরিব হলেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী। অ্যাসোসিয়েশন ফর ডেমোক্রেটিক রিফর্মস (এডিআর) রিপোর্টে জানানো হয়েছে, ভারতের ৩০ জন মুখ্যমন্ত্রীর মধ্যে ২৯ জনই কোটিপতি। তবে কেবল গরিব মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী। তার সম্পতির পরিমাণ মাত্র ১৫ লাখ রুপি।

অ্যাসোসিয়েশন ফর ডেমোক্রেটিক রিফর্মস (এডিআর) রিপোর্ট অনুযায়ী, দেশটির সবচেয়ে বিত্তশালী মুখ্যমন্ত্রী হলেন অন্ধপ্রদেশের জগনমোহন রেড্ডি। তার মোট সম্পত্তির পরিমাণ প্রায় ৫১০ কোটি রুপি।

দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে অরুণাচল প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী পেমা খান্ডু। তবে তিনি অন্ধপ্রদেশের জগনমোহন রেড্ডির থেকে বেশ খানিকটা পিছিয়ে। তার সম্পত্তির পরিমাণ ১৬৩ কোটি রুপি। এরপর তৃতীয় স্থানে আছে উড়িষ্যার মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়। তার সম্পত্তির পরিমাণ ৬৩ কোটি রুপি।

তবে বিহারের ও দিল্লীর মুখ্যমন্ত্রীর সম্পত্তির পরিমাণ সমান। নিতিশ কুমার ও অরবিন্দ কেজরিওয়ালের সম্পত্তির পরিমাণ ৩ কোটি রুপি করে।

হরিয়ানার মুখ্যমন্ত্রীর মনোহরলাল খট্টরের স্থাবর-অস্থাবর সম্পত্তির মোট অংক প্রায় এক কোটি রুপি। কেরালার মুখ্যমন্ত্রী পিনারই বিজয়নের সম্পত্তির পরিমাণ এক কোটি রুপির সামান্য কিছু বেশি।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ভারতের ৩০ জন মুখ্যমন্ত্রীর মধ্যে ৯৭ শতাংশই কোটিপতি। মুখ্যমন্ত্রীদের গড় সম্পত্তির পরিমাণ ৩৩ দশমিক ৯৬ কোটি।

তাছাড়া মুখ্যমন্ত্রীদের মধ্যে ৪৩ শতাংশের বিরুদ্ধে ফৌজদারি মামলা রয়েছে। সব সময়ই পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী বলেছেন, দীর্ঘদিন জনপ্রতিনিধি থাকলেও তিনি কোনো বেতন নেন না। পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী পদের বেতন তিনি নেন না। দীর্ঘদিন লোকসভার সংসদ সদস্য ছিলেন তার পেনশনেও তিনি গ্ৰহণ করেন না।

তার রোজগারের উৎস বই লেখা, গান লেখা, ছবি আঁকা। শিল্পকর্ম থেকে পাওয়া অর্থ তার একমাত্র সম্পত্তি।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

ভারতের সবচেয়ে গরিব মুখ্যমন্ত্রী মমতা

আপডেট সময় : ০৫:৩৯:০৪ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৩ এপ্রিল ২০২৩

ভারতের ২৮টি রাজ্য ও ২টি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের মুখ্যমন্ত্রীদের মধ্যে সবচেয়ে গরিব হলেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী। অ্যাসোসিয়েশন ফর ডেমোক্রেটিক রিফর্মস (এডিআর) রিপোর্টে জানানো হয়েছে, ভারতের ৩০ জন মুখ্যমন্ত্রীর মধ্যে ২৯ জনই কোটিপতি। তবে কেবল গরিব মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী। তার সম্পতির পরিমাণ মাত্র ১৫ লাখ রুপি।

অ্যাসোসিয়েশন ফর ডেমোক্রেটিক রিফর্মস (এডিআর) রিপোর্ট অনুযায়ী, দেশটির সবচেয়ে বিত্তশালী মুখ্যমন্ত্রী হলেন অন্ধপ্রদেশের জগনমোহন রেড্ডি। তার মোট সম্পত্তির পরিমাণ প্রায় ৫১০ কোটি রুপি।

দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে অরুণাচল প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী পেমা খান্ডু। তবে তিনি অন্ধপ্রদেশের জগনমোহন রেড্ডির থেকে বেশ খানিকটা পিছিয়ে। তার সম্পত্তির পরিমাণ ১৬৩ কোটি রুপি। এরপর তৃতীয় স্থানে আছে উড়িষ্যার মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়। তার সম্পত্তির পরিমাণ ৬৩ কোটি রুপি।

তবে বিহারের ও দিল্লীর মুখ্যমন্ত্রীর সম্পত্তির পরিমাণ সমান। নিতিশ কুমার ও অরবিন্দ কেজরিওয়ালের সম্পত্তির পরিমাণ ৩ কোটি রুপি করে।

হরিয়ানার মুখ্যমন্ত্রীর মনোহরলাল খট্টরের স্থাবর-অস্থাবর সম্পত্তির মোট অংক প্রায় এক কোটি রুপি। কেরালার মুখ্যমন্ত্রী পিনারই বিজয়নের সম্পত্তির পরিমাণ এক কোটি রুপির সামান্য কিছু বেশি।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ভারতের ৩০ জন মুখ্যমন্ত্রীর মধ্যে ৯৭ শতাংশই কোটিপতি। মুখ্যমন্ত্রীদের গড় সম্পত্তির পরিমাণ ৩৩ দশমিক ৯৬ কোটি।

তাছাড়া মুখ্যমন্ত্রীদের মধ্যে ৪৩ শতাংশের বিরুদ্ধে ফৌজদারি মামলা রয়েছে। সব সময়ই পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী বলেছেন, দীর্ঘদিন জনপ্রতিনিধি থাকলেও তিনি কোনো বেতন নেন না। পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী পদের বেতন তিনি নেন না। দীর্ঘদিন লোকসভার সংসদ সদস্য ছিলেন তার পেনশনেও তিনি গ্ৰহণ করেন না।

তার রোজগারের উৎস বই লেখা, গান লেখা, ছবি আঁকা। শিল্পকর্ম থেকে পাওয়া অর্থ তার একমাত্র সম্পত্তি।