বগুড়া ০১:৫৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ৯ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম ::
Logo কাহালুর বীরকেদার ইউনিয়নে বিএনপির গণ-সংযোগ ও লিফলেট বিতরণ অনুষ্ঠিত Logo কাহালুর শেখাহার দ্বি-মূখী উচ্চ বিদ্যালয়ের বার্ষিক ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ Logo আদমদিঘীতে সড়ক দুর্ঘটনায় এক শিশু নিহত Logo বগুড়ায় মাসিক কল্যাণ সভায় শ্রেষ্ঠ নির্বাচিত শেরপুর থানা Logo র‍্যাবের যৌথ অভিযানে আটক ৬ Logo বগুড়ায় ছুরিকাঘাতে এক যুবক নিহত Logo কাহালু প্রেসক্লাবের নতুন কমিটি গঠন সম্পর্কে সিনিয়র সহ আট সাংবাদিকের বিবৃতি প্রদান Logo কাহালুতে বিএনপির গণ-সংযোগ ও লিফলেট বিতরণ Logo যুবলীগের সাধারণ সম্পাদকের পদ চান বিএনপি জামায়াতের নাশকতা মামলার আসামী Logo সান্তাহারে ট্রেনের টিকিট কালোবাজারি চক্রের সদস্য গ্রেফতার
নোটিশ ::
"বগুড়া বুলেটিন ডটকম" এ আপনাকে স্বাগতম। বগুড়ার প্রত্যেক উপজেলায় ১জন করে প্রতিনিধি নিয়োগ দেওয়া হবে। ফাঁকা উপজেলাসমূহ- সদর, শাজাহানপুর, ধনুট, শেরপুর, নন্দীগ্রাম

জানাজা শেষে বাড়ি ফেরার পথে সড়ক দুর্ঘটনায় দুই ভাইয়ের মৃত্যু

বগুড়া বুলেটিন ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ০১:৪৯:১৫ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৬ মার্চ ২০২৩
  • / 131
আজকের জার্নাল অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

খালার জানাজা শেষে বাড়ি ফেরার পথে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছেন দুই ভাই। এ ঘটনায় শিশুসহ একই পরিবারের আরও চারজন গুরুতর আহত হয়েছেন।

শনিবার (২৫ মার্চ) রাত পৌনে ৮টার দিকে হবিগঞ্জের বানিয়াচং উপজেলার ভাটিপাড়া নামক এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত দুই ভাই হলেন উপজেলার চিলাপাঞ্জা গ্রামের কানাই মিয়ার ছেলে মহিন উদ্দিন (৬০) ও তাজউদ্দিন (৪৫)। আহতরা হলেন নিহত তাজউদ্দিনের ছেলে মিশকাত (৭), নিহত মহিন উদ্দিনের স্ত্রী রিজিয়া বেগম (৫৫), চিলাপাঞ্জা গ্রামের নবীর হোসেনের স্ত্রী খাইরুন্নেছা (৫২) এবং একই গ্রামের মিন্নত আলীর ছেলে মো. আলী।

হতাহতের স্বজনরা জানান, খালার জানাজা পড়ার জন্য দুই ভাই তাদের পরিবারের লোকজনকে নিয়ে বানিয়াচংয়ের উজিরপুর গ্রামে গিয়েছিলেন। ইফতারের পর দুটি সিএনজি অটোরিকশা দিয়ে তারা ফিরছিলেন বানিয়াচংয়ে। পথিমধ্যে উপজেলার সুবিদপুর ইউনিয়নের ভাটিপাড়া নামক স্থানে একটি এস্কেভেটরের সঙ্গে ধাক্কা লেগে উল্টে যায় দুটি সিএনজি। এতে গুরুতর আহত হন মহিন উদ্দিন ও তার ভাই তাজউদ্দিনসহ পরিবারের আরও চারজন।

এসময় বানিয়াচং উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পদ্মাসন সিংহ হবিগঞ্জ শহর থেকে বানিয়াচং যাচ্ছিলেন। পথে দুর্ঘটনা দেখে তিনি তার গাড়ি দিয়ে হতাহতদের সদর আধুনিক হাসপাতালে পাঠান।

বানিয়াচং থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) অজয় চন্দ্র দেব দুর্ঘটনার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পদ্মাসন সিংহ বলেন, আমি হবিগঞ্জ শহর থেকে ফেরার পথে দুর্ঘটনাটি দেখতে পাই। তখন অনেক গাড়ি সেখানে থাকলেও কেউ আহতদের হাসপাতালে নিতে রাজি হয়নি। তাৎক্ষণিক আমি আমার গাড়ি দিয়ে তাদের সদর হাসপাতালে প্রেরণ করি। আর আমি অন্য একটি সিএনজি নিয়ে চলে যাই। পরে জানতে পারি যে, আহত দুই ভাই মারা গেছেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

জানাজা শেষে বাড়ি ফেরার পথে সড়ক দুর্ঘটনায় দুই ভাইয়ের মৃত্যু

আপডেট সময় : ০১:৪৯:১৫ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৬ মার্চ ২০২৩

খালার জানাজা শেষে বাড়ি ফেরার পথে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছেন দুই ভাই। এ ঘটনায় শিশুসহ একই পরিবারের আরও চারজন গুরুতর আহত হয়েছেন।

শনিবার (২৫ মার্চ) রাত পৌনে ৮টার দিকে হবিগঞ্জের বানিয়াচং উপজেলার ভাটিপাড়া নামক এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত দুই ভাই হলেন উপজেলার চিলাপাঞ্জা গ্রামের কানাই মিয়ার ছেলে মহিন উদ্দিন (৬০) ও তাজউদ্দিন (৪৫)। আহতরা হলেন নিহত তাজউদ্দিনের ছেলে মিশকাত (৭), নিহত মহিন উদ্দিনের স্ত্রী রিজিয়া বেগম (৫৫), চিলাপাঞ্জা গ্রামের নবীর হোসেনের স্ত্রী খাইরুন্নেছা (৫২) এবং একই গ্রামের মিন্নত আলীর ছেলে মো. আলী।

হতাহতের স্বজনরা জানান, খালার জানাজা পড়ার জন্য দুই ভাই তাদের পরিবারের লোকজনকে নিয়ে বানিয়াচংয়ের উজিরপুর গ্রামে গিয়েছিলেন। ইফতারের পর দুটি সিএনজি অটোরিকশা দিয়ে তারা ফিরছিলেন বানিয়াচংয়ে। পথিমধ্যে উপজেলার সুবিদপুর ইউনিয়নের ভাটিপাড়া নামক স্থানে একটি এস্কেভেটরের সঙ্গে ধাক্কা লেগে উল্টে যায় দুটি সিএনজি। এতে গুরুতর আহত হন মহিন উদ্দিন ও তার ভাই তাজউদ্দিনসহ পরিবারের আরও চারজন।

এসময় বানিয়াচং উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পদ্মাসন সিংহ হবিগঞ্জ শহর থেকে বানিয়াচং যাচ্ছিলেন। পথে দুর্ঘটনা দেখে তিনি তার গাড়ি দিয়ে হতাহতদের সদর আধুনিক হাসপাতালে পাঠান।

বানিয়াচং থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) অজয় চন্দ্র দেব দুর্ঘটনার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পদ্মাসন সিংহ বলেন, আমি হবিগঞ্জ শহর থেকে ফেরার পথে দুর্ঘটনাটি দেখতে পাই। তখন অনেক গাড়ি সেখানে থাকলেও কেউ আহতদের হাসপাতালে নিতে রাজি হয়নি। তাৎক্ষণিক আমি আমার গাড়ি দিয়ে তাদের সদর হাসপাতালে প্রেরণ করি। আর আমি অন্য একটি সিএনজি নিয়ে চলে যাই। পরে জানতে পারি যে, আহত দুই ভাই মারা গেছেন।