বগুড়া ০৩:৪০ অপরাহ্ন, বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ৯ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম ::
Logo বগুড়ার সদরের নুনগোলা উচ্চ বিদ্যালয়ে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উদযাপন Logo কাহালুর বীরকেদার ইউনিয়নে বিএনপির গণ-সংযোগ ও লিফলেট বিতরণ অনুষ্ঠিত Logo কাহালুর শেখাহার দ্বি-মূখী উচ্চ বিদ্যালয়ের বার্ষিক ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ Logo আদমদিঘীতে সড়ক দুর্ঘটনায় এক শিশু নিহত Logo বগুড়ায় মাসিক কল্যাণ সভায় শ্রেষ্ঠ নির্বাচিত শেরপুর থানা Logo র‍্যাবের যৌথ অভিযানে আটক ৬ Logo বগুড়ায় ছুরিকাঘাতে এক যুবক নিহত Logo কাহালু প্রেসক্লাবের নতুন কমিটি গঠন সম্পর্কে সিনিয়র সহ আট সাংবাদিকের বিবৃতি প্রদান Logo কাহালুতে বিএনপির গণ-সংযোগ ও লিফলেট বিতরণ Logo যুবলীগের সাধারণ সম্পাদকের পদ চান বিএনপি জামায়াতের নাশকতা মামলার আসামী
নোটিশ ::
"বগুড়া বুলেটিন ডটকম" এ আপনাকে স্বাগতম। বগুড়ার প্রত্যেক উপজেলায় ১জন করে প্রতিনিধি নিয়োগ দেওয়া হবে। ফাঁকা উপজেলাসমূহ- সদর, শাজাহানপুর, ধনুট, শেরপুর, নন্দীগ্রাম

কাহালুতে ধর্ষন মামলার আসামী গ্রেফতার

আব্দুল মতিন, কাহালু(বগুড়া)প্রতিনিধি
  • আপডেট সময় : ১২:১৭:৩৯ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৫ মার্চ ২০২৩
  • / 157
আজকের জার্নাল অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

বগুড়ার কাহালু থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আব্দুল্লাহ আল মামুন এর দিক নির্দেশনায় থানার এস আই এনামুল হক সঙ্গীয় ফোর্স সহ শনিবার দুপুরে উপজেলার মালঞ্চা বাজার এলাকায় অভিযান চালিয়ে ধর্ষন মামলার আসামী আতিকুর রহমান (২৪)কে গ্রেফতার করেছেন। গ্রেফতারকৃত আসামী আতিকুর রহমান কাহালু উপজেলার অঘোর মালঞ্চা গ্রামের ইসলামের পুত্র।
গত ইং ২৩/০৩/২৩ তারিখে কাহালু থানায় তার বিরুদ্ধে বিয়ের পলোভন দেখিয়ে একাধিকবার ধর্ষনের অভিযোগ এনে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের করেন ভুক্তভোগী মহিলা। কাহালু থানার মামলা নং-১৭, তারিখ ইং ২৩/০৩/২৩।
মামলা সূত্রে জানা যায়, ৩ মাস পূর্বে মামলার আসামী আতিকুর রহমানের সাথ মোবাইল ফোনে শেরপুর উপজেলার ভিকটিম জনৈক্য যুবতী (২০) এর পরিচয় হয়। তারপর আসামী তাকে বিভিন্ন প্রলোভন দেখিয়ে ও বিয়ে করবে বলে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলে। গত ইং ০৯/০৩/২৩ তারিখে ভিকটিম তার ভাইয়ের শ্বশুর বাড়ী কাহালু উপজেলার অঘোর মালঞ্চা গ্রামে দাওয়াত খেতে আসে। ঐ দিন রাত ৯ টার দিকে আতিকুর রহমান ভিকটিমকে তাদের অঘোর মালঞ্চা গ্রামে নির্মাণাধীন পাকা বাড়ীর ছাদে দেখা করার জন্য ডাকে। প্রেমিক ভিকটিম সরল বিশ্বাসে তার সাথে দেখা করার জন্য ছাদে গেলে আসামী আতিকুর রহমান তাকে বিয়ে করার প্রলোভন দেখিয়ে তার ইচ্ছার বিরুদ্ধে জোরপূর্বক ধর্ষন করে। ভিকটিম মান সম্মানের ভয়ে চিল্লাচিল্লি করেনি। পরবর্তী গত ইং ১১/০৩/২৩ তারিখে রাত সাড়ে ৯ টার দিকে আতিকুর রহমান পূনরায় ভিকটিমকে উক্ত ছাদে কথা বলার জন্য ডাকে ভিকটিম সেখানে যাওয়া মাত্রই তাকে ঝাপটে ধরে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষন করে।
উক্ত ঘটনার পর ভিকটিম আসামী আতিকুর রহমান এর বাড়ীতে গিয়ে বিয়ে করা জন্য বলিলে সে বিভিন্ন তালবাহানা করিয়া সময় কালক্ষেপন করিতে থাকে। এমতাবস্থায় গত ইং ২২/০৩/২৩ তারিখে সন্ধ্যায় ভিকটিম আতিকুর রহমানের বাড়ীতে গেলে সে বিয়ে করবে না বলে সাফ জানিয়ে দেয় এবং সে সহ তার বাড়ীর লোকজন তাকে তাড়িয়ে দেয়। এ ঘটনার পরদিন ভিকটিম কাহালু থানায় আতিকুর রহমানের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন।
এ ব্যাপারে কাহালু থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আব্দুল্লাহ আল মামুন এর সাথে কথা বলা হলে তিনি জানান, এ মামলার আসামীকে গ্রেফতার করে আদালতে পাঠানো হয়েছে এবং ভিকটিমের মেডিকেল পরীক্ষা সম্পূন্ন হয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

কাহালুতে ধর্ষন মামলার আসামী গ্রেফতার

আপডেট সময় : ১২:১৭:৩৯ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৫ মার্চ ২০২৩

বগুড়ার কাহালু থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আব্দুল্লাহ আল মামুন এর দিক নির্দেশনায় থানার এস আই এনামুল হক সঙ্গীয় ফোর্স সহ শনিবার দুপুরে উপজেলার মালঞ্চা বাজার এলাকায় অভিযান চালিয়ে ধর্ষন মামলার আসামী আতিকুর রহমান (২৪)কে গ্রেফতার করেছেন। গ্রেফতারকৃত আসামী আতিকুর রহমান কাহালু উপজেলার অঘোর মালঞ্চা গ্রামের ইসলামের পুত্র।
গত ইং ২৩/০৩/২৩ তারিখে কাহালু থানায় তার বিরুদ্ধে বিয়ের পলোভন দেখিয়ে একাধিকবার ধর্ষনের অভিযোগ এনে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের করেন ভুক্তভোগী মহিলা। কাহালু থানার মামলা নং-১৭, তারিখ ইং ২৩/০৩/২৩।
মামলা সূত্রে জানা যায়, ৩ মাস পূর্বে মামলার আসামী আতিকুর রহমানের সাথ মোবাইল ফোনে শেরপুর উপজেলার ভিকটিম জনৈক্য যুবতী (২০) এর পরিচয় হয়। তারপর আসামী তাকে বিভিন্ন প্রলোভন দেখিয়ে ও বিয়ে করবে বলে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলে। গত ইং ০৯/০৩/২৩ তারিখে ভিকটিম তার ভাইয়ের শ্বশুর বাড়ী কাহালু উপজেলার অঘোর মালঞ্চা গ্রামে দাওয়াত খেতে আসে। ঐ দিন রাত ৯ টার দিকে আতিকুর রহমান ভিকটিমকে তাদের অঘোর মালঞ্চা গ্রামে নির্মাণাধীন পাকা বাড়ীর ছাদে দেখা করার জন্য ডাকে। প্রেমিক ভিকটিম সরল বিশ্বাসে তার সাথে দেখা করার জন্য ছাদে গেলে আসামী আতিকুর রহমান তাকে বিয়ে করার প্রলোভন দেখিয়ে তার ইচ্ছার বিরুদ্ধে জোরপূর্বক ধর্ষন করে। ভিকটিম মান সম্মানের ভয়ে চিল্লাচিল্লি করেনি। পরবর্তী গত ইং ১১/০৩/২৩ তারিখে রাত সাড়ে ৯ টার দিকে আতিকুর রহমান পূনরায় ভিকটিমকে উক্ত ছাদে কথা বলার জন্য ডাকে ভিকটিম সেখানে যাওয়া মাত্রই তাকে ঝাপটে ধরে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষন করে।
উক্ত ঘটনার পর ভিকটিম আসামী আতিকুর রহমান এর বাড়ীতে গিয়ে বিয়ে করা জন্য বলিলে সে বিভিন্ন তালবাহানা করিয়া সময় কালক্ষেপন করিতে থাকে। এমতাবস্থায় গত ইং ২২/০৩/২৩ তারিখে সন্ধ্যায় ভিকটিম আতিকুর রহমানের বাড়ীতে গেলে সে বিয়ে করবে না বলে সাফ জানিয়ে দেয় এবং সে সহ তার বাড়ীর লোকজন তাকে তাড়িয়ে দেয়। এ ঘটনার পরদিন ভিকটিম কাহালু থানায় আতিকুর রহমানের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন।
এ ব্যাপারে কাহালু থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আব্দুল্লাহ আল মামুন এর সাথে কথা বলা হলে তিনি জানান, এ মামলার আসামীকে গ্রেফতার করে আদালতে পাঠানো হয়েছে এবং ভিকটিমের মেডিকেল পরীক্ষা সম্পূন্ন হয়েছে।